শিরোনাম

সরাইলে মুক্তিযোদ্ধার বাড়ি গুড়িয়ে দিয়েছে সন্ত্রাসীরা ॥ নিরাপত্তাহীনতায় মুক্তিযোদ্ধার পরিবার

সরাইল প্রতিনিধি | মঙ্গলবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২০ | পড়া হয়েছে 127 বার

সরাইলে মুক্তিযোদ্ধার বাড়ি গুড়িয়ে দিয়েছে সন্ত্রাসীরা ॥ নিরাপত্তাহীনতায় মুক্তিযোদ্ধার পরিবার

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইলে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি দীলিপ কুমার নাগের বাড়ির দুটি ঘর ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিয়েছে প্রভাবশালী একটি ভূমিখেকো চক্র।

মঙ্গলবার (৮ ডিসেম্বর, ২০২০) সকালে উপজেলার শাহবাজপুর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। শাহবাজপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান নান্না মিয়ার ছেলে ইকরামুল আমিন বাবু মিয়ার নেতৃত্বে ২৫/৩০ জনের একটি সন্ত্রাসীদল এক্সেভেটর (ভেকু মেশিন) দিয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধা দীলিপ কুমার নাগের দুটি ঘর ভেঙ্গে দেয় বলে অভিযোগ উঠেছে।


এ ঘটনায় মঙ্গলবার বিকেল ৫টায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে মুক্তিযোদ্ধা দীলিপ কুমার নাগ অভিযোগ করে বলেন, তার মালিকানাধীন ২৪ শতক জায়গার অন্দরে গত তিনমাস আগে তিনি ২০হাত লম্বা এবং ৮হাত প্রস্তে দুটি ঘর নির্মান করেন। কিন্তু পাশের জায়গার মালিক বাবু মিয়া তার জায়গাটি দখল করার জন্য তাকে নানাভাবে হুমকি ধমকি দিয়ে আসছিলেন।
এ ঘটনায় তিনি গত ২০১৯ সালে আদালতে মামলা করেন বলে সংবাদ সম্মেলনে জানান। তিনি বলেন, প্রতিপক্ষকে আদালত থেকে সমন দিলেও তারা আদালতের সমন গ্রহন না করে জোরপূর্বক জায়গা দখলের চেষ্টা অব্যাহত রাখলে তিনি সরাইল থানায় গত ৫ মাস আগে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

তিনি বলেন, মঙ্গলবার ভোরে বাবু মিয়া ২৫/৩০জন সন্ত্রাসী নিয়ে মাটি কাটার ভেকু মেশিন (এক্সেভেটর) দিয়ে তার দুটি ঘর গুড়িয়ে দেয়। খবর পেয়ে তিনি বাড়ি থেকে বেড়োনোর চেষ্টা করলে তার বাড়ির গেটে সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে দাড়িয়ে থাকায় তিনি বাড়ি থেকে বেড়োতে পারেননি।

তিনি আরো বলেন, এ ঘটনায় সরাইল থানায় অভিযোগ দায়েরের পর থানা কর্তৃপক্ষ তাদেরকে (প্রতিপক্ষ) কাগজপত্র নিয়ে থানার আসার জন্য একাধিকবার চিঠি দিলেও তারা থানায় যাননি। তিনি ও তার পরিবারের সদস্যরা চরম নিরাপত্তাহীনতার মধ্যে রয়েছেন বলে তিনি জানান।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক প্রদ্যোৎ নাগ, সুভাষ পাল, সুভাষ দাস প্রমুখ।

এ ব্যাপারে সরাইল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ নাজমুল আহমেদ ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, সবার অগোচরে রাতের আধাঁরে ভাংচুর চালিয়েছে ওরা। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ফোর্স পাঠানো হয়েছে । দিলীপ বাবুকে লিখিত অভিযোগ দেয়ার জন্য বলা হয়েছে। তিনি আরো জানান,বাবু মিয়া আমেরিকার দ্বৈত নাগরিক। সে কখন দেশে এসেছে কিংবা এলাকায় এসেছে আমরাও জানিনা, এমনকি দিলীপ নাগও জানেন না ।

এ ব্যাপারে কথা বলার জন্য ইকরামুল আমিন বাবু মিয়ার সাথে মোবাইলে যোগাযোগের চেষ্টা করেও কথা বলা সম্ভব হয়নি ।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১