শিরোনাম

সদর উপজেলার পঞ্চম পরিষদের প্রথম সাধারণ সভা বয়কট করেছেন ৯জন ইউপি চেয়ারম্যান

প্রেস বিজ্ঞপ্তি | বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০১৯ | পড়া হয়েছে 305 বার

সদর উপজেলার পঞ্চম পরিষদের প্রথম সাধারণ সভা বয়কট করেছেন ৯জন ইউপি চেয়ারম্যান

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার পঞ্চম পরিষদের প্রথম সাধারণ সভা বয়কট করেছেন উপজেলার ৯জন ইউপি চেয়ারম্যান। গত বুধবার (২২-মে) বিকেলে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়।

জানা গেছে, সভায় সদ্য বিদায়ী চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, ভাইস চেয়ারম্যান মহসিন মিয়া ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান তাসলিমা সুলতানা খানম সহ সদর উপজেলার ১১ টি ইউনিয়নের মধ্যে ৯ টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান যোগ দেননি।


সভায় উপস্থিত ছিলেন নাটাই উত্তর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাবিবুল্লাহ বাহার ও সুলতানপুর ইউনিয়ন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আবুল খায়ের।

প্রথম সভায় যোগ দেননি সদর উপজেলার বাসুদেব ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এস আলম ভূঁইয়া, মাছিহাতা ইউপি চেয়ারম্যান আলআমিনুল হক পাভেল, রামরাইল ইউপি চেয়ারম্যান শাহাদাত হোসেন, সাদেকপুর ইউপি চেয়ারম্যান অ্যাডঃ আবদুল হাই, তালশহর পূর্ব ইউপি চেয়ারম্যান এনামুল হক ওসমান, বুধল ইউপি চেয়ারম্যান আবদুল হক ও মজলিশপুর ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ তাজুল ইসলাম সুহিলপুর ইউপি চেয়ারম্যান আজাদ হোসেন হাজারী আঙ্গুর ও নাটাই দক্ষিণ ইউপি চেয়ারম্যান নাজমুল হোসেন ।

সদর উপজেলার ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) নাজিমুল হায়দারের উপস্থিতিতে বক্তব্য রাখেন নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান ফিরোজুর রহমান ওলিও, ভাইস চেয়ারম্যান লোকমান হোসেন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শামীমা মুজিব।

বক্তব্যে লায়ন ফিরোজুর রহমান বলেন, যেসব চেয়ারম্যান আমার সভায় আসে নাই, তারা মনে হয় দুর্ঘটনার কবলে পড়েছেন। তা না হলে আসত। যা হোক তারপর আমি তাদের মঙ্গল কামনা করি।

এ ব্যাপারে বাসুদেব ইউপি চেয়ারম্যান এস আলম ভূঁইয়া জানান, অভিষেক সভায় ৯জন চেয়ারম্যান যায়নি। তিনি (লায়ন ফিরোজুর রহমান) চেয়ারম্যান হয়েছেন সভার বিষয়ে আমাদেরকে ফোন করেনি। ইউএনও সরকারি কর্মকর্তা। তিনি সরকারি দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে সভার বিষয়ে আমাদেরকে জানিয়েছেন। তিনি বলেন, বিজয়ী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শপথ গ্রহনের সময় দাওয়াত দিয়ে অনেককেই নিয়ে গেছেন। কিন্তু কোনো চেয়ারম্যানকে বলেননি।

তিনি আরো বলেন, ৩০ মার্চ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের দিন ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আইন শৃঙ্খলা অবনতি হয়েছিল। যা ব্রাহ্মণবাড়িয়াতে আগে কখনো হয়নি। আর ওই দিন আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের হাতে সবাইকে নাজেহাল হতে হয়েছে। এটা ব্রাহ্মণবাড়িয়াবাসী কখনও ভুলবে না। সভা বর্জন করেছেন কি না প্রসঙ্গে তিনি বলেন, সভা বর্জন করেছি বিষয়টি এমন না। আমরা সভায় যাইনি।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১