শিরোনাম

শেখ হাসিনা সড়কে ৫৪কোটি টাকা ব্যয়ে দুই ব্রীজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করলেন মোকতাদির চৌধুরী এম.পি

স্টাফ রিপোর্টার : | শনিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৮ | পড়া হয়েছে 208 বার

শেখ হাসিনা সড়কে ৫৪কোটি টাকা ব্যয়ে দুই ব্রীজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করলেন মোকতাদির চৌধুরী এম.পি

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর ও বিজয়নগর উজেলার শেখ হাসিনা (সিমনা-ব্রাহ্মণবাড়িয়া) সংযোগ সড়কে দু’টি ব্রীজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হয়েছে।

আজ ২০ অক্টোবর শনিবার দুপুরে বিজয়নগরের পত্তন এলাকার লইসকা ও বালিয়াজুড়ি নদীর উপর ব্রীজ দু’টির ভিত্তিপ্রস্থর স্থাপন করেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য, পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা র.আ.ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী এম.পি।


এ উপলক্ষে সিমনা শিবির এলাকায় এক সূধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সুধী সমাবেশে মোকতাদির চৌধুরী এম.পি বলেন, সিমনা ব্রাহ্মণবাড়িয়া সড়কটি তার নির্বাচনী এলাকা ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর এবং বিজয়নগর এলাকার কয়েক লাখ মানুষের দীর্ঘদিনের স্বপ্ন ছিল। সেই স্বপ্নের বাস্তবায়ন হচ্ছে। তিনি বলেন সড়কটি নির্মাণ হলে জেলা শহরের ওপর দিয়ে বয়ে চলা তিতাসের পূর্ব পাড়ে নতুন নতুন শিল্প কারখানা, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠবে। জেলা শহর সম্প্রসারিত হবে। এতে জেলার মানচিত্রটাই পাল্টে যাবে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

এ সময় অন্যানের মধ্যে উপস্থিত বিজয়নগর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আলী আফরোজ,বিজয়নগরে উপজেলা প্রকৌশলী জামাল উদ্দিন,জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি তাজ মো ইয়াছিন, বিজয়নগর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি জহিরুল ইসলাম ভূঁইয়া, বিজয়নগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান তানভীর ভূইয়া,ভাইস চেয়ারম্যান বাবুল আক্তার,মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ফয়জুন নাহার টুনি,ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক দীপক চৌধুরী বাপ্পী, পত্তন ইউপি চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান রতনসহ স্থানীয় নেতৃবৃন্দ।

উল্লেখ্য, ২০১০ সালের ১২ মে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি কলেজ মাঠে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সিমনা-ব্রাহ্মণবাড়িয়া সড়কটি নির্মাণের ঘোষণা দেন। পরে গত বছরের জুন মাসে প্রায় ৪০ কোটি টাকা ব্যয়ে সাড়ে আট কিলোমিটার দৈর্ঘ্য এবং ২৪ ফিট প্রস্থ বিজয়নগরের সিমনা-ব্রাহ্মণবাড়িয়া সড়কের নির্মাণ কাজ শুরু হয়। শনিবার সকালে সিমনা ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় (শেখ হাসিনা)সড়কের স্থানীয় সরকার প্রকৌশল বিভাগের বাস্তবায়নে লইসকা নদীর উপর ৩৩ কোটি টাকা ব্যয়ে ২৪০ মিটার এবং বালিয়াজুড়ি নদীর উপর ২১ কোটি টাকা ব্যয়ে ১৭৫ মিটার সেতু দু’টি নির্মাণ করা হবে।

ব্রীজ গুলো নির্মিত হলে জেলা সদরের সাথে বিজয়নগর উপজেলার সরাসরি সড়ক যোগযোগ স্থাপিত হবে।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০