শিরোনাম

যেভাবে প্রোটিনের ঘাটতি বুঝবেন

অনলাইন ডেস্ক : | বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮ | পড়া হয়েছে 289 বার

যেভাবে প্রোটিনের ঘাটতি বুঝবেন

শরীরকে চাঙা রাখতে প্রোটিনের প্রয়োজনীয়তা অপরিসীম। শরীরে শক্তি যোগায় প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার । দীর্ঘক্ষণ পেট ভর্তি রাখে প্রোটিন। প্রোটিনে প্রচুর অ্যামাইনো অ্যাসিড থাকায় শরীরের পেশী বৃদ্ধি হয়। অনেক সময় আবার শরীরে প্রোটিনের ঘাটতি দেখা দেয়। এর ফলে ভবিষ্যতে বড় সমস্যা দেখা দিতে পারে।

আসুন জেনে নেই শরীরে প্রোটিনের ঘাটতি হলে যেসব সমস্যা দেখা দিতে পারে।


-: ত্বক, চুল ও নখ :-

প্রোটিনে ঘাটতি হলে ত্বক, চুল ও নখে দাগ ছাপ দেখা যায়। লালচ দাগ, পাতলা চুল, চুলেক রং হাল্কা হয়ে যায়।

-: শরীরের মাংস ক্ষয় :-

শরীরের মূল উপাদান প্রোটিন তাই এর অভাব হলে চেহারা খারাপ হতে শুরু করে।তাই প্রোটিন ঘাটতি হলে প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার খাওয়া জরুরি।

-: হাড় ভাঙার ঝুঁকি :-

শরীরে প্রোটিনের অভাব হলে হাড় ভাঙার ঝুঁকি বাড়ে। প্রোটিন হাড়কে শক্ত ও গভীর রাখে। প্রোটিনের ঘাটতি হলে হাড় দুর্বল ও ভঙ্গুর হয়ে যায়।

-: বেশি ক্ষুধা :-

প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার দীর্ঘক্ষণ পেট ভর্তি রাখে ফলে বারবার ক্ষুধা পায় না। এছাড়া অতিরিক্ত ক্যালোরি জাতীয় খাবার খাওয়ার প্রবণতা কম থাকে।

-: ইনফেকশন :-

প্রোটিনের অভাবে ইমিউনিটি ব্যবস্থা ধাক্কা খায়। ফলে শরীরে রোগ বাসা বাঁধতে পারে।

-: ফ্যাটি লিভার :-

প্রোটিন ঘাটতির একটি সাধারণ লক্ষণ হল ফ্যাটি লিভার। লিভার ৫ শতাংশ পর্যন্ত চর্বি দাহ্য করতে পারে। তবে লিভারে যদি ৫ শতাংশের বেশি চর্বি জমে থাকে, এটা ধীরে ধীরে ফ্যাটি লিভারে রূপান্তর হয়।

-: শিশুদের শারীরিক বৃদ্ধিতে বাধা :-

শিশুদের ক্ষেত্রে প্রোটিন খুবই জরুরি। ঠিক মতো প্রোটিন না খেলে তাদের বৃদ্ধি ও বিকাশ ব্যহত হয়। সামুদ্রিক মাছ, সয়াবিন, জিন, বিন, দুধ, চিজ, দই, আমন্ড, ওটস, চিকেন, কটেজ চিজ, কুমরো বীজ, ব্রকোলি, তিসির বীজ, টুনা, ডাল, মাছ ও বাদামে প্রচুর প্রোটিন থাকে।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১