শিরোনাম

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন

ভোটযুদ্ধের আগে মনোনয়নযুদ্ধ

স্টাফ রিপোর্টার : | বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর ২০১৮ | পড়া হয়েছে 137 বার

ভোটযুদ্ধের আগে মনোনয়নযুদ্ধ

আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন। ইতিমধ্যে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা দলীয় মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করছেন। মনোনয়ন প্রত্যাশীদের বেশীর ভাগই মনোনয়ন পেতে এখন ঢাকায় দলীয় নেতাদের সাথে লবিং করছেন।

ক্ষমতাসীন দল আওয়ামীলীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীরা ইতিমধ্যেই দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করে মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন। গতকাল বুধবার গনভবনে দলীয় প্রধান শেখ হাসিনার সাথে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের স্বাক্ষাতকার অনুষ্ঠিত হয়।


ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ৬টি আসনে দলীয় মনোনয়ন পেতে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন ৮১জন প্রার্থী। গত শুক্রবার থেকে গত রবিবার পর্যন্ত প্রার্থীরা ধানমন্ডির দলীয় কার্যালয় থেকে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন। ৮১ প্রার্থীর মধ্যে অর্ধেকের মতো প্রার্থীর মাঠ পর্যায়ে কোন যোগাযোগ নেই। ছিলনা প্রচার-প্রচারণাও।

৬ টি আসনের মধ্যে সর্বোচ্চ সংখ্যক প্রার্থী ব্রাহ্মণবাড়িয়া -৫-(নবীনগর) আসনে। এখানে প্রার্থী সংখ্যা ২৪জন। সবচেয়ে কম প্রার্থী ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৬-(বাঞ্চারামপুর) আসনে। এখানে প্রার্থী সংখ্যা ৭ জন। এছাড়া ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১-(নাসিরনগর) আসনে ১৩জন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২-(সরাইল-আশুগঞ্জ) আসনে ১৯জন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩-(সদর-বিজয়নগর) আসনে ১০জন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৪-(কসবা-আখাউড়া) আসনে ৯জন প্রার্থী দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন। প্রার্থীদের মধ্যে সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডঃ ফজিলাতুন নেসা বাপ্পী ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন।

-: ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১-(নাসিরনগর) :-
এই আসনে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন বর্তমান সংসদ সদস্য বি এম ফরহাদ হোসেন সংগ্রাম, সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডঃ ফজিলাতুন নেসা বাপ্পী, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এটিএম মনিরুজ্জামান সরকার, সাবেক মন্ত্রী অ্যাডঃ ছায়েদুল হকের সহধর্মিনী দিলশাদ আরা বেগম চিনু, কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের অর্থ বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ্ব মোঃ নাজির মিয়া, কেন্দ্রীয় কৃষকলীগ নেতা এম.এ করিম, যুক্তরাজ্য আওয়ামীলীগ সহ-সভাপতি সৈয়দ মোহাম্মদ এহসান, নিউইয়র্ক সিটি আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি এ কে এম আলমগীর, বাংলাদেশ হিন্দু-বৌদ্ধ-খৃষ্টান ঐক্য পরিষেদের নাসিরনগর উপজেলা সাধারণ সম্পাদক আদেশ চন্দ্র দেব, কেন্দ্রীয় যুব মহিলা লীগের শিক্ষা, প্রশিক্ষণ ও পাঠাগার সম্পাদক এমবি কানিজ, ঢাকাস্থ নাসিরনগর উপজেলা সমিতির সাধারন সম্পাদক মোঃ আলী আশরাফ, বাংলাদেশ আওয়ামী প্রজন্মলীগের সহ-সভাপতি প্রকৌশলী মোঃ ইখতেশামুল কামাল ও বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজোটের আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডঃ রাখেশ চন্দ্র সরকার।

-: ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২-( সরাইল-আশুগঞ্জ) :-
এই আসনে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন সংরক্ষিত মহিলা আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডঃ ফজিলাতুন্নেছা বাপ্পী, সংরক্ষিত মহিলা আসনের সাবেক সংসদ সদস্য জোবেদা খাতুন পারুল, ধানমন্ডি থানা আওয়ামীলীগের সভাপতি কামাল আহমেদ দুলাল, কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবকলীগের সহ-সভাপতি ও জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক আলহাজ্ব মঈন উদ্দিন মঈন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল হান্নান রতন, সরাইল উপজেলা আওয়ামীলীগের আহবায়ক অ্যাডঃ নাজমুল হোসেন, সরাইল উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক ও জেলা আওয়ামীলীগের সদস্য উম্মে ফাতেমা নাজমা বেগম শিউলী আজাদ, সরাইল উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান রফিক উদ্দিন ঠাকুর, কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগ নেতা অ্যাডঃ কামরুজ্জামান আনসারী, সরাইল উপজেলা যুবলীগের সভাপতি অ্যাডঃ আশরাফ উদ্দিন মন্তু, সরাইল উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা অ্যাডঃ সৈয়দ তানবীর হোসেন কাউছার, আশুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামীলীগের আহবায়ক হাজী মোঃ ছফিউল্ল­াহ মিয়া, যুগ্ম আহবায়ক হানিফ মুন্সী, স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদের কেন্দ্রীয় সাধারন সম্পাদক অধ্যক্ষ শাহজাহান আলম সাজু, আশুগঞ্জ উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ আনিছুর রহমান, সাবেক যুগ্ম-সচিব ফরহাদ রহমান মাক্কী, কেন্দ্রীয় যুবলীগের সদস্য মুজিবুর রহমান, আওয়ামীলীগ নেত্রী সাদেকা বেগম ও সাংবাদিক জালাল মিয়া।

-: ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩-(সদর-বিজয়নগর) :-
এই আসনে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন এই আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য ও পার্বত্য চট্টগ্রাম মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি র. আ. ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী, ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ শফিকুল আলম, সাবেক সচিব মিজানুর রহমান, সাবেক পৌর মেয়র মোঃ হেলাল উদ্দিন, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মিনারা আলম, আওয়ামীলীগ নেতা মোঃ আলমগীর, সাবেক ছাত্রনেতা আশরাফ উদ্দিন লিমন, মোঃ শামসুদ্দোহা, জহিরুল ইসলাম রতন, ও মোছাঃ আসমা বেগম।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৪- (কসবা-আখাউড়া)ঃ
এই আসনে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন বর্তমান সংসদ সদস্য ও আইনমন্ত্রী অ্যাডঃ আনিসুল হক এম.পি, সাবেক সংসদ সদস্য অ্যাডঃ মোঃ শাহ আলম, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের আন্তর্জাতিক বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য নারায়ণ সাহা মণি, যুবলীগের কেন্দ্রীয় নেতা শ্যামল কুমার রায়, কসবা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ শামসুল হক, অ্যাডঃ আবু আমজাদ, অ্যাডঃ আলমগীর, জি এইচ এম কাজল।

-: ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫- ( নবীনগর) :-
এই আসনে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন বর্তমান সংসদ সদস্য ও নবীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফয়জুর রহমান বাদল, কেন্দ্রীয় কৃষকলীগের উপদেষ্টা এবাদুল করিম বুলবুল, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক কাজী মোর্শেদ হোসেন কামাল, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ওয়ার্ড কাউন্সিলর ও যুবলীগ নেতা এ কে এম মমিনুল হক সাঈদ, কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক লীগের সমবায় ও স্বনির্ভর বিষয়ক সম্পাদক শফিকুল ইসলাম, নবীনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নিয়াজ মোহাম্মদ খান, সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ শফিকুল ইসলাম, সদস্য জাকির হোসেন, মোঃ সাঈফুর রহমান, কবির আহমেদ ভূঁইয়া, মোঃ হেলাল উদ্দিন, অ্যাডঃ খোরশেদ আলম, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি আরিফুল ইসলাম টিপু, নবীনগর উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক নুরুন্নাহার বেগম, যুগ্ম আহবায়ক মাহমুদা আক্তার শিউলি, ইতালি ও সুইডেন প্রবাসী বঙ্গবন্ধু পরিষদের সভাপতি সিরাজরুল হক রানা, আওয়ামী লীগ সমর্থক খন্দকার এনামুল নাছির, কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা আলামিনুল হক ও মাঈন উদ্দিন আহমেদ, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য গোলাম জাকারিয়া, রসুল্লাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সদস্য শেখ আবুল হোসেন, কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের সহ-সম্পাদক জহির উদ্দিন সিদ্দিক টিটু, আওয়ামী সাংস্কৃতিক ফোরামের সাধারণ সম্পাদক মাহমুদা মুত্তাকিমা এবং কেন্দ্রীয় যুব মহিলালীগের পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক তাহরিমা হক সুক্তি।

-: ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৬- (বাঞ্ছারামপুর) :-
এই আসনে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন বর্তমান সংসদ সদস্য ক্যাপ্টেন (অব.) এ বি তাজুল ইসলাম, বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মহিউদ্দিন আহমেদ মহি, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আবুল খায়ের দুলাল, বাঞ্ছারামপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোঃ সিরাজুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের শিক্ষা সম্পাদক সাঈদ আহমেদ বাবু ও বাঞ্ছারামপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মোঃ গোলাম মোস্তফা কামাল।
এদিকে গতকাল বুধবার প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা বলেন, যেসব আসনে মনোনয়নপত্র বেশি কেনা হয়েছে সেখানে নেতৃত্ব শূন্যতা রয়েছে, সেখানে যত বড় নেতাই হোক না কেন, তারা পার্টিকে অর্গানাইজ করতে পারে নাই। এটা তাদের নেতৃত্ব শূন্যতার প্রমাণ। সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। ক্ষমতায় আসলে অনেক পদ ক্রিয়েট করা হবে, সেখানে সবাইকে একমোডেট করা হবে।
আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, জাতীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে জরিপ চালিয়েছি। এর ভিত্তিতে মনোনয়ন দেয়া হবে। কোনো প্রার্থীর প্রতি ভোটারের সমর্থন আছে, সেটা বিবেচনায় নেয়া হবে। শেখ হাসিনা বলেন, ‘জরিপে যারা এগিয়ে থাকবেন তাদেরকে মনোনয়ন দেয়া হবে। সেখানে ছোট নেতা, বড় নেতা দেখা হবে না। যাকে মনোনয়ন দেব তার পক্ষে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। নইলে বিপদ হবে। ক্ষমতায় আসছি মনে করে নিজেদের মধ্যে যে আসন খাওয়া-খাওয়ির মনোভাব তা পরিহার করতে হবে।’ তিনি বলেন, যে প্রার্থীকে মনোনয়ন দেয়া হবে তার পক্ষে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করতে হবে। প্রার্থীতা বিরোধিতা ও প্রার্থীর বিপক্ষে বিরোধিতা করা হলে আজীবনের জন্য বহিষ্কার করা হবে। স্থানীয় সরকার নির্বাচনগুলোতে দলের যারা ইতোমধ্যে নির্বাচিত হয়ে আছেন তাদেরকে সংসদ সদস্য হিসেবে মনোনয়ন দেয়া হবে না। প্রার্থীর নিজ নিজ যোগ্যতা, দক্ষতা, রাজনৈতিক ত্যাগ-তীতিক্ষা থাকতে হবে। জনসম্পৃক্ত হতে হবে।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১