শিরোনাম

উপজেলা পরিষদের নির্বাচন

বিজয়নগরে সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করার দাবি

স্টাফ রিপোর্টার | রবিবার, ১৯ মে ২০১৯ | পড়া হয়েছে 284 বার

বিজয়নগরে সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত করার দাবি

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের জন্য সুষ্ঠু পরিবেশ নিশ্চিত এবং সম্ভাব্য স্বতন্ত্র প্রার্থী নাসিমা লুৎফুর রহমানের গাড়ি বহরে হামলা ও অগ্নিসংযোগের ঘটনায় দায়িদের বিচার দাবি করা হয়েছে।

অজ রবিবার (১৯-মে) ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেস ক্লাবে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে নাছিমা লুৎফুর রহমানের স্বামী লুৎফুর রহমান এই দাবি জানান।


সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, হামলার ঘটনায় হরষপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সারোয়ার রহমান ভূঁইয়া ও তার ছেলে দর্পণ ভূঁইয়াসহ পাঁচজনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাতনামা আরো ৩০ জনকে আসামী করে বিজয়নগর থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত শনিবার রাতে ভুক্তভোগী রফিকুল ইসলাম নামে একজন বাদী হয়ে থানায় এই মামলা দায়ের করেন।

সংবাদ সম্মেলনে লুৎফুর রহমান দাবি করেন গত ১৫ মে রাতে বিজয়নগর উপজেলার ইক্তারপুর এলাকায় গণসংযোগ শেষে তার স্ত্রীর কর্মী সমর্থকরা ১১টি মাইক্রোবাসে করে ফেরার পথে রাত ৯টার দিকে স্থানীয় আয়াত শাহ মাজারের কাছে তাদের গাড়ি বহর পৌছলে হরষপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সারোয়ার রহমান ভূঁইয়া ও তার ছেলে দর্পণ ভূঁইয়াসহ তাদের অনুসারীরা গাড়ি বহরে হামলা চালিয়ে ৮টি মাইক্রোবাস ভাংচুর ও একটি মাইক্রোবাস আগুনে পুড়িয়ে দেয়া হয়।

লুৎফুর রহমান দাবি করেন, হামলাকারীরা উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট তানভীর ভূইয়ার অনুসারী।
আগামী নির্বাচনে হেরে যাওয়ার ভয়ে তানভীর ভূইয়ার অনুসারীরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে এই হামলা ভাংচুর করে। সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, হামলা ভাংচুর হলেও পুলিশ মামলা না নিতে গড়িমসি করে কালক্ষেপন করেছে। হামলার ঘটনার পর থেকে এলাকার সাধারন মানুষের মাঝে ভোট নিয়ে আতঙ্ক বিরাজ করছে। তিনি সুষ্ঠু নির্বাচনের পরিবেশ নিশ্চিত করার জন্য প্রশাসনের কাছে দাবি জানান।

এ ব্যাপারে হরষপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি সারোয়ার রহমান ভূইয়ার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি হামলার ঘটনায় তিনি ও তার ছেলে দর্পন ভূইয়া জড়িত নন বলে জানান। তিনি বলেন, স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী নাসিমা লুৎফুর রহমানের গাড়ী বহর স্থানীয় এক যুবককে ধাক্কা দিলে উত্তেজিত গ্রামবাসী গাড়ি বহরে হামলা করে ।

এ ব্যাপারে উপজেলা চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট তানবীর ভূইয়ার সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, খবর পেয়ে তিনি পরদিন সকালে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। তিনি বলেন, এই ঘটনার সাথে তার অনুসারীরা জড়িত নয়।

উল্লেখ্য, আগামী ১৮ই জুন বিজয়নগর উপজেলা পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। ওই নির্বাচনে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে গণসংযোগ করে আসছেন কুয়েত-বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিলের সভাপতি লুৎফর রহমানের সহধর্মীনি নাছিমা লুৎফুর রহমান।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১