শিরোনাম

নবীনগরে চেয়ারম্যানের হস্তক্ষেপে বাল্যবিবাহ বন্ধ

| শনিবার, ২৯ অক্টোবর ২০১৬ | পড়া হয়েছে 458 বার

নবীনগরে চেয়ারম্যানের হস্তক্ষেপে বাল্যবিবাহ বন্ধ

নবীনগর উপজেলার সলিমগঞ্জ ইউপি চেয়ারম্যান মো: খোরশেদ আলমের হস্তক্ষেপে বাল্যবিবাহ থেকে রক্ষা পেল বাড়াইল পশ্চিম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণীর ছাত্রী বৃষ্টি আক্তার (১২)। সে রাজনগর গ্রামের নজরুল ইসলামের মেয়ে।

জানা গেছে, শুক্রবার ২৮ অক্টোবর বৃষ্টি আক্তারের সাথে নরসিংদী জেলার সালদা গ্রামের মো: পাভেল মিয়ার বিয়ের কথা ছিল। বিষয়টি ইউপি চেয়ারম্যান অবগত হয়ে পরিবারের লোকজনকে ঢেকে এনে বৃহস্পতিবার রাতে বাল্যবিবাহের কুফল সম্পর্কে অবগত করিয়ে বিয়ে বন্ধ করে দেন। ইউপি চেয়ারম্যান খোরশেদ আলম বাল্যবিবাহ বন্ধের সত্যতা স্বীকার করেন।


প্রেরক: মনিরুল ইসলাম বাবু, নবীনগর(ব্রাহ্মণবাড়িয়া)প্রতিনিধি।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০