শিরোনাম

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় কথিত অনলাইন টিভির দুই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের

শামীম-উন-বাছির | বুধবার, ০৮ জুলাই ২০২০ | পড়া হয়েছে 179 বার

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সদস্যসহ একাধিক সাংবাদিকের বিরুদ্ধে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মানহানিকর ভিডিও প্রচার ও স্ট্যাটাস দেয়ার অভিযোগে কথিত অললাইন টিভির দুই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সদস্য সচিব দীপক চৌধুরী বাপ্পী বাদী হয়ে ৭ জুলাই ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানায় এই মামলা দায়ের করেন।


মামলার আসামীরা হলেন কথিত অনলাইন টিভি “পথিক টিভি” এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক লিটন হোসাইন জিহাদ ও একই টিভির কথিত চীফ ভিডিও এডিটর ও লিটনের ছোট ভাই আর. জে শাখাওয়াত (শাহিন)।

মামলার এজাহারে বলা হয়, আসামীরা নামমাত্র সাংবাদিক। সাংবাদিকতার পরিচয়ে প্রতারণা করা তাদের নেশা ও পেশা। গত ১৬ জুন লিটন হোসাইন জিহাদ তার ফেসবুক আইডিতে লিখেন, “পথিক টিভির সমালোচনাকারী ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সেই সকল সদস্যদের প্রতি আমার ঘৃণা। তাদের জন্ম পরিচয় নিয়ে আমার সন্দেহ আছে। তাই সমালোচনাকারীদের জন্মের ইতিহাস নিয়ে তৈরি করা পথিক টিভির সেই দুটি ভিডিও দেখতে পারেন। কমেন্ট বক্সে লিঙ্ক দেওয়া আছে”।

একই দিন মঙ্গলবার দুপুরে লিটন আবার তার ফেসবুকের স্ট্যাটাসে লিখেন, “লোকগুলোকে চিনে থাকলে নিচে কমেন্ট করুন। আপনি তথ্য দিন। পথিক টিভিকে কেন্দ্র করে যারা বাজে পোষ্ট দিচ্ছে তাদের জীবন আচার নিয়ে আগামীকাল লাইভে আসবো। রোমাঞ্চকর স্টোরি শুনাবো সবাইকে”। (এছাড়াও আরো অনেক অশ্রাব্য কথা-বার্তা)।

এরপর ১৭ জুন ২ নং আসামী সাখাওয়াত ১ নং আসামী লিটনের প্ররোচনা ও সহায়তায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সদস্যদের উদ্যেশ্য করে পথিক টিভির পেইজে ২ নং আসামী একটি ভিডিও প্রকাশ করেন যেখানে বলা হয়, “সাংবাদিক লেবাসধারীরা পথিক টিভির অফিস ঝাড়ু দিতো। তারা এই শহরের নর্দমা বা বস্তি থেকে উঠে আসা কিছু মানুষ ইত্যাদি বক্তব্য প্রধান করে।

এজাহারে বলা হয়, আসামীদের এমন বক্তব্য ও স্ট্যাটাস বিভিন্ন পেশাজীবী সম্প্রদায় বা শ্রেণীর মধ্যে শত্রুতা, ঘৃণা, বিদ্বেষ সৃষ্টি হয়ে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি হতে পারে।

এ বিষয়ে মামলার বাদী সাংবাদিক দীপক চৌধুরী বাপ্পী বলেন, আমরা সবসময় অপসাংবাদিকতার বিরুদ্ধে ছিলাম এবং থাকবো। তবে যে কেউ সঠিক সাংবাদিকতা করলে আমরা তাকে সাধুবাদ জানাই।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানার পরিদর্শক (অপারেশন) ইসতিয়াক আহমেদ জানান, মামলা হয়েছে, এখন আসামীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১