শিরোনাম

রেল লাইনের নীচ দিয়ে বোরিং করে অবৈধ গ্যাস পাইপ লাইন সংযোগ যেকোন সময় দুর্ঘটনার আশংকা

ঠিকাদারদের অবৈধ গ্যাস সংযোগের দুঃসাহসিক অপতৎপরতা অব্যাহত যেকোন সময় দুর্ঘটনার আশংকা

ষ্টাফ রিপোর্টার | রবিবার, ০৩ জানুয়ারি ২০১৬ | পড়া হয়েছে 665 বার

ঠিকাদারদের  অবৈধ গ্যাস সংযোগের দুঃসাহসিক অপতৎপরতা অব্যাহত যেকোন সময় দুর্ঘটনার আশংকা

বাখরাবাদ গ্যাস ডিষ্ট্রিবিউশন কোঃ লিঃ এর   উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে জনতার অভিযোগ, গ্যাস কোম্পানির কতিপয় ঠিকাদারের মাধ্যমে ১ শ্রেণীর কিছু অসৎ কর্মকর্তা আর কতিপয় ঠিকাদারদের যোগসাজশে অবৈধ গ্যাস সংযোগ প্রদান করে বিপুল অংকের অর্থ হাতিয়ে নিচ্ছে একটি চক্র। প্রাতিষ্ঠানিক আইন ও বিচ্ছিন্নকরণ  অভিযান সত্তে¡ও ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় দেদারছে চলছে ঠিকাদার ও সাব ঠিকাদারদের অবৈধ গ্যাস সংযোগের দুঃসাহসিক অপতৎপরতা। নির্ভরযোগ্য ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে প্রকাশ, কয়েকজন প্রভাবশালী ঠিকাদার যৌথ ভাবে শহরে ও শহরের আশপাশ এলাকায় বেশ কয়েকটি বড় বড় অবৈধ সংযোগ  দিয়েছে । তার মধ্যে গত ১ জানুয়ারি শুক্রবার সকালে সবচেয়ে বড় ও   দুঃসাহসিক কাজ করেছে ভাদুঘর এলাকার মোল্লা বাড়ি রোড এর রেল ক্রসিং সংলগ্ন এলাকায় সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া রেলের মাটির নীচ দিয়ে বোরিং করে  গ্যাসের নিম্ন মানের পাইপ লাইন সংযোগ স্থাপন করে । যা সম্পূর্ণ বেআইনি। এতে ট্রেন চলাচল কালে যে কোন সময় ভয়াবহ দুর্ঘটনার আশংকা রয়েছে। গ্যাস পাইপ লাইন স্থাপন কালে সদর থানা পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌছে এই কাজে জড়িত ঠিকাদারের শ্রমিকদের আটকের চেষ্টা করলে তারা দৌড়ে পালিয়ে যায়।  এ বিষয়ে আখাউড়া রেলওয়ে জিআরপি থানার ওসির সাথে ফোনে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, আমি বিয়টি অবগত নই । সরেজমিনে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
এছাড়া ও ভাদুঘর পেট্টোল পাম্প এর বিপরীত দিকে সড়ক ও জনপথ বিভাগের কোন প্রকার অনুমোদন ছাড়া রাস্তা বোড়িং করে পূর্ব পাশ থেকে পশ্চিম পাশে প্রায় ৩ শত ফুট লম্বা নিম্ন মানের পাইপ (যা আলু বাজারের পাইপ নামে পরিচিত) দিয়ে বেশ কিছু সংযোগ অবৈধভাবে দেয়া হয়েছে ঐ এলাকায়, সুমন নামের এক কথিত ঠিকাদার যার নিজের কোন লাইসেন্স নেই, তিনি এসব কাজ করে চলেছেন। স¤প্রতি বিরাসার কবরস্থানের পশ্চিম দিকে বিপুল সংখ্যক অবৈধ গ্যাস সংযোগ প্রদান করেছেন কথিত এ ঠিকাদার।


আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০