শিরোনাম

মুক্তিযোদ্ধা সংসদ-সন্তান কমান্ড ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমিটির আলোচনা সভায় বক্তারা

জেল হত্যা দিবস জাতির জীবনে এক কলংকময় দিন

| শনিবার, ০৩ নভেম্বর ২০১৮ | পড়া হয়েছে 79 বার

জেল হত্যা দিবস জাতির জীবনে এক কলংকময় দিন

একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে নেতৃত্বদানকারী জাতীয় চার নেতাকে হত্যার কলঙ্কময় দিন জেলহত্যা দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করেছে বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ- সন্তান কমান্ড ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমিটি। দিবসটি উপলক্ষে আজ ৩ নভেম্বর শনিবার ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স মিলনাতনে বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ- সন্তান ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমিটির সদস্য সচিব মোঃ আহসান উল্লাহ্ হাসানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব মোঃ হারুন অর রশিদ।

এ সময় মুক্তিযোদ্ধা ও তাদের সন্তানবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


আলোচনা শেষে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও জাতীয় চার নেতার আত্মার মাগফেরাত কামনায় দোয়া করা হয়।

সভার শুরুতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও জাতীয় চার নেতার স্মরণে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়।

সভায় বক্তারা বলেন, এ দিনটিকে বাঙালি জাতির কলঙ্কময় দিন। খুনি মোশতাক জিয়ার নির্দেশে বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে স্বপরিবারে হত্যার পর ক্ষান্ত না হয়ে ৩ নভেম্বর তারা জাতীয় চার নেতাকে জেলখানায় নির্মমভাবে হত্যা করেন বলে অভিযোগ করেন বক্তারা। বিএনপি-জামায়াত যারা বঙ্গবন্ধু ও জাতীয় চার নেতার হত্যাকারীদের আশ্রয় দিয়েছে তারা চূড়ান্তভাবে পরাজিত হবে। বক্তারা আরো বলেন, একটি সংঘবদ্ধ অপশক্তির দেশ বিরোধী ও দেশের উন্নয়নবিরোধী চক্রান্ত নস্যাৎ করতে সবাইকে এগিয়ে আসবে হবে। মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় ঐক্যবদ্ধ হয়ে সব ষড়যন্ত্র মোকাবেলার মাধ্যমে সমুন্নত রাখার পাশাপাশি আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও ভোট বিপ্লবের মাধ্যমে নৌকার বিজয় সুনিশ্চিত করতে হবে।

৩ নভেম্বরের জেলা হত্যা দিবসের আলোচনা শেষে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার বাসুদেব ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের সম্মেলন একই স্থানে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সম্মেলনে বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ- সন্তান কমান্ড ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলা কমিটির সিনিয়র সহ সভাপতি মোঃ গিয়াস উদ্দিন আমজাদের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আলহাজ্ব মোঃ হারুন অর রশিদ।

প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ- সন্তান কমান্ড ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কমিটির সদস্য সচিব মোঃ আহসানউল্লাহ্ হাসান।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন এস আর এম ফারুক, বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ জাহাঙ্গীর কবির, মহিউদ্দিন আহম্মেদ।

সদর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইয়াছিন সরকারের পরিচালনায় এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন হারুন অর রশিদ চৌধুরী, ইমুনি ইস্টিয়ান, ফেবিন আহমেদ, আনোয়ার হোসেন, সাইফুল ইসলাম খন্দকার, খন্দকার নূরে আলম, সাজেদা বেগম, মমতাজ আক্তার, খাদিজা আক্তার, জেসমিন আক্তার লিমা, চম্পাকলি বেগম, ইয়াকুব আলী, মোঃ জামাল মিয়া, মোঃ জহিরুল ইসলাম, মোঃ গিয়াস উদ্দিন, মোঃ কামরুল হাসান, মোঃ জাকির হোসেন, মোঃ সোহেল মিয়া, হোসনা বেগম, মোছাঃ হাজেরা আক্তার, মোঃ মাহমুদুল হাসান, মোঃ লাভলু মিয়া, মাসুদ ভূঁইয়া, মোঃ শরিফ আহমেদ প্রমুখ। সম্মেলনের শুরুতেই কোরআন থেকে তেলওয়াত করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ জাহাঙ্গীর কবির।

সম্মেলনে সর্বসম্মতিক্রমে মোঃ মীর মোঃ দেলোয়ার হোসেন কে সভাপতি ও মিনহাজুর রহমান (ইভান)কে সাধারণ সম্পাদক করে ২১ সদস্য বিশিষ্ট বাসুদেব ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সন্তান কমান্ডের কমিটি ঘোষণা করা হয়।-প্রেস বিজ্ঞপ্তি

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১