শিরোনাম

ছাত্রলীগ নেতার গুলিতে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা গুলিবিদ্ধ, শহর ছাত্রলীগের কার্যক্রম স্থগিত

স্টাফ রিপোর্টার : | শনিবার, ০৯ জুন ২০১৮ | পড়া হয়েছে 577 বার

ছাত্রলীগ নেতার গুলিতে সাবেক ছাত্রলীগ নেতা গুলিবিদ্ধ, শহর ছাত্রলীগের কার্যক্রম স্থগিত

এক ছাত্রলীগ নেতার গুলিতে সাইফুল ইসলাম শান্ত (২৬) নামের অপর ছাত্রলীগ নেতা গুরুতর আহত হয়েছেন।

এ ঘটনাটি ঘটেছে আজ শনিবার (০৯.০৬.২০১৮) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরের মেড্ডা পুদ্দার বাড়ি মোড়ে।


গুরুতর আহত শান্তকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

শান্ত জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সম্পাদক ও মেড্ডা এলাকার অহিদ মিয়ার ছেলে।

জানা যায়, শহরের মেড্ডায় জেলা ট্রাক মালিক গ্রুপ ও পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়ন যৌথভাবে ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে।

উক্ত অনুষ্ঠানে সাইফুল ইসলাম শান্তর সাথে পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক স্বাধীন আল লিমনের ধাক্কা লাগে। এই নিয়ে বাকবিতণ্ডা হয়। এর কিছুক্ষণ পর শান্ত বাড়ি যাওয়ার পথে মেড্ডা পুদ্দার বাড়ি মোড়ে স্বাধীন আল লিমন তাকে একা পেয়ে গুলি করে।

গুলিবিদ্ধ শান্তকে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক গুরুতর অবস্থায় তাকে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে প্রেরণ করে।

এ ঘটনায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক লিমন আল স্বাধীনকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। একই সাথে পৌর ছাত্রলীগের কার্যক্রম স্থগিত ঘোষণা করা হয়।

রাতে জেলা ছাত্রলীগের এক জরুরি সভায় এই সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয় বলে জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহাদাৎ হোসেন শোভন নিশ্চিত করেছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, সন্ধ্যায় ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর এলাকার মেড্ডা ট্রাক টার্মিনালে জেলা ট্রাক মালিক সমিতির ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। এতে স্থানীয় সংসদ সদস্য র.আ.ম. উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী প্রধান অতিথি ছিলেন।

এ সময় জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ মাসুম বিল্লাহ সেখানে গিয়ে ছাত্রলীগে অনেক বেয়াদব ঢুকে গেছে বলে অভিযোগ তুলেন। এ নিয়ে তার সাথে উপস্থিত কয়েকজনের কথা কাটাকাটি হয়। ইফতারের কয়েক মিনিট আগে সাইদুল ইসলাম শান্ত গুলিবিদ্ধ হন।

আহত শান্ত জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মোঃ মাসুম বিল্লাহ’র চাচাতো ভাই। মাসুম বিল্লাহ অভিযোগ করে বলেন, একেবারে তুচ্ছ ঘটনায় পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক লিমন আল স্বাধীন উত্তেজিত হয়ে এ ঘটনা ঘটিয়েছেন।

তবে লিমন আল স্বাধীন অবশ্য এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। তিনি জানান, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মাসুম বিল্লাহ ইফতার মাহফিলে গিয়ে উচ্চবাচ্য শুরু করলে এ নিয়ে বাগবিতন্ডা হয়। এরই এক পর্যায়ে শান্ত আক্রমণের শিকার হন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা সদর হাসপাতালের চিকিৎসক ফয়েজুর রহমান ফয়েজ জানান, শান্ত এর বুকে দুইটি গুলি লেগেছে। একটি গুলি অপসারণ করা হয়েছে। আরেকটি গুলি অপসারণ করা যায়নি। তাকে ঢাকায় প্রেরণ করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মোঃ জিয়াউল হক জানান, কিছুটা উত্তেজনা থাকায় শহরের গুরুত্বপূর্ণস্থানে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। আহত শান্তকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। লিখিত অভিযোগ পেলে এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০